আজকের শিশু-কিশোরই আগামীর ভবিষ্যৎ
ভালোবাসা দিয়েই শাসন করা সহজ; ওসি জলিল

জহিরুল ইসলাম টিটুঃ

সারাদেশের ন্যায় লক্ষ্মীপুরের রায়পুর থানা পুলিশও অব্যাহত রেখেছেন কিশোর গ্যাংসহ সকল অন্যায়ের বিরুদ্ধে সাঁড়াশি অভিযান। এরই মাঝে বিকল্প চিন্তা-চেতনায় ঘুমন্ত বিবেককে জাগিয়ে তুলতে রায়পুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবদুল জলিল নিয়েছেন ব্যাতিক্রমী পদক্ষেপ।

গতকাল শনিবার (৩০ জানুয়ারি) রায়পুর পৌর শহরে টহলরত অবস্থায় ৭/৮ জন কিশোরকে দোকানে বসে অহেতুক আড্ডায় ব্যস্ত দেখে তাদেরকে তুলে নিয়ে আসেন থানায় এবং জিজ্ঞাসাবাদে জানতে পারেন তাদের প্রত্যেকেই ছাত্র।
তাই, তাদের প্রতি মানবিক বিবেচনা করে প্রত্যেকের অভিভাবকের মুঠোফোন নাম্বার সংগ্রহ করে ফোন করেন প্রত্যেকের পরিবারে এবং সকল অভিভাবককে থানায় আসার অনুরোধ জানান।
পরবর্তীতে প্রতিটি ছাত্রের মায়েরা এসে উপস্থিত হন থানায় এবং অনুরোধ জানান যে, ওদেরকে যেন প্রথম বারের মতো শুধরানোর সুযোগ দিয়ে মুক্তি দেওয়া হয়।
এরপর ওসি আবদুল জলিল মায়েদের প্রতি শ্রদ্ধা ও সম্মান রেখে অনুরোধ জানিয়ে বলেন, আপনার সন্তানকে দেখেশুনে রাখা আপনার কর্তব্য। ছাত্রদের প্রতি বিশেষ নির্দেশনায় বলেন, সন্ধ্যার পরে কোনভাবেই দোকানে বসে আড্ডা দেওয়া যাবেনা এবং অহেতুক ঘোরাঘুরি বন্ধ করে নিয়মিত লেখা-পড়ায় মনোনিবেশ করতে হবে। অন্যথায় পূনরায় কোন অপ্রীতিকর ঘটনার সাথে জড়িত হলে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এব্যপারে ওসি আবদুল জলিল বলেন, কিশোরদের ভালোবাসার মাধ্যমে শাসন করা সহজ। তবে, অধিক ভালোবাসাও বিপদজনক! তাই, প্রত্যেক অভিভাবকেরই উচিৎ তার সন্তানের দৈনন্দিন চলাফেরার উপর নজরদারি করা। আর এতেই কমবে তাদের উশৃংখল চলাফেরা এবং কমবে সামাজিক অন্যায়। আমাদের প্রত্যেকেরই মনে রাখা উচিত ‘আজকের শিশু-কিশোরই আগামীর ভবিষ্যৎ’

নিউজটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *